‘অ্যাভেঞ্জারস’ কোনো সিনেমাই নয়

0
10

মার্টিন স্করসেজি। ছবি: ইনস্টাগ্রামমার্টিন স্করসেজি। ছবি: ইনস্টাগ্রাম

মার্ভেল স্টুডিওর সিনেমা নিয়ে তুলকালাম কাণ্ড ঘটছে পৃথিবীজুড়ে। ‘থ্যানোস’, ‘আয়রনম্যান’, ‘থর’–ভক্তরা মার্ভেলের ছবির চরিত্র বলতে পাগল। মার্ভেলের সাম্প্রতিক ছবি ‘অ্যাভেঞ্জারস: এন্ডগেম’ মুক্তির সময় সেটা আবারও বোঝা গিয়েছিল। খোদ বাংলাদেশেও টিকিট কেনার জন্য রাত থেকে সারি বেঁধেছিলেন তরুণ ভক্তরা। ছবিটিও চলেছে ধুন্ধুমার। সেই ছবিগুলোর নামকেই সিনেমার খাতা থেকে কেটে দিলেন বিখ্যাত চলচ্চিত্রকার মার্টিন স্করসেজি।

সম্প্রতি একটি সাময়িকীর সঙ্গে সাক্ষাৎকারে স্করসেজি বলেন, ‘ছবিগুলো আমি দেখিনি। তবে চেষ্টা করেছি। ওগুলো কিন্তু সিনেমা নয়।’ তিনি আরও বলেন, ‘সত্যি বলছি। তারা ভালো বানিয়েছে। অভিনেতারাও ভালো অভিনয় করেছে। কিন্তু এটা আসলে থিম পার্ক। এগুলো মানুষকে নিয়ে বানানো কোনো সিনেমা নয়, যা একজনের আবেগ-অনুভূতি ও মানসিক অভিজ্ঞতা আরেকজনের কাছে পৌঁছে দেয়।’

এমন মন্তব্যের পরেই সাড়া পড়ে গেছে হলিউডে। কয়েকজন পরিচালক ও কমিক বুক–সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি টুইট করেছেন স্করসেজির মন্তব্যের জের ধরে। জেমস গুন লিখেছেন, ‘আমি খুবই রাগ করেছিলাম, যখন লোকজন “দ্য লাস্ট টেম্পটেশন অব ক্রাইস্ট” না দেখেই খেপে উঠেছিল। আর তিনি (মার্টিন স্করসেজি) একইভাবে আমার সিনেমার মূল্যায়ন করলেন।’ এই পরিচালক আরও বলেন, ‘আমি সব সময়ই স্করসেজিকে ভালোবাসি। সিনেমায় তাঁর অবদানের জন্য সত্যিই আমি গর্বিত। “দ্য আইরিশম্যান” দেখাতে আর তর সইছে না।’

এ নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পাল্টাপাল্টি মন্তব্য চলছে। এর আগেও এ রকম বিতর্কিত মন্তব্য করেছিলেন মার্টিন স্করসেজি। সূত্র: ভ্যারাইটি

LEAVE A REPLY