আবরার ফাহাদ হত্যার বিচার দ্রুতবিচার ট্রাইব্যুনালে হবে: আইনমন্ত্রী

0
19
আইনমন্ত্রী আনিসুল হক (ফাইল ছবি)

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যাকাণ্ডের বিচার দ্রুতবিচার ট্রাইব্যুনালে হবে। আবরার হত্যাকাণ্ডের অভিযোগপত্র দেয়ার পর আজ বুধবার সচিবালয়ে নিজ দপ্তরে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে একথা জানান তিনি।

এর আগে দুপুরে আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় ২৫ জনকে আসামি করে গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে চার্জশীট জমা দেয়।

আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেন, এরকম হত্যাকাণ্ড ঘটানো উচিত নয়। সমাজ এটাকে মেনে নেবে না, আমরা এটাকে মেনে নেবো না। এটার উচিত বিচার হতে হবে। এটার মতো আর কোনোদিন যাতে পুনরাবৃত্তি না ঘটে সেটা আমাদের নিশ্চিত করতে হবে।

আইনমন্ত্রী বলেন, এই বিচারের মাধ্যমে অন্ততপক্ষে একটা বার্তা জনগণের কাছে যাক যে এরকম হত্যাকাণ্ডের বিচার হোক, অপরাধীরা সাজা পাক।

তিনি বলেন, আগে বলেছিলাম- তদন্ত শেষে অভিযোগপত্র যখন আদালতে দাখিল করা হবে তখন থেকে দায়িত্ব হবে প্রসিকিউশন টিমের। তখন বলেছিলাম, আমি একটা প্রসিকিউশন টিম প্রস্তুত রাখবো। এই মামলাটি যখনই বিচারিক আদালতে পৌঁছে তখনই যেন তারা বিচার কাজ শুরু করতে পারে। ঠিক সেই পরিকল্পনা অনুযায়ী আমি প্রসিকিউশন টিম প্রস্তুত রেখেছি। অভিযোগপত্র চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টে দাখিল করার পরে কিছু ফর্মালিটিজ আছে। সেগুলো যত শিগগিরই সম্ভব আমরা সম্পন্ন করবো এবং সোমবারের মধ্যে প্রসিকিউশন টিমকে বলবো দায়িত্ব নিতে।

দ্রুতবিচারের সময়সীমা নিয়ে আইনমন্ত্রী বলেন, দ্রুতবিচারে যদি বিচার করা হয় তাহলে প্রথম সময়সীমা হচ্ছে ৯০ দিন। তারপরের সময় ৩০ দিন। মোট ১২০ দিনের মধ্যে যদি বিচার সম্পন্ন করতে না পারে তাহলে তৃতীয়বারের জন্য ১৫ দিনের সময় আছে। এই ১৩৫ দিনের মধ্যে বিচার সম্পন্ন করতে হবে।

LEAVE A REPLY